হাদীস

ইমাম নববীর ৪০ হাদীস ( হাদীস নং- ১৭)

হাদীস-১৭

শিরোনামঃ উত্তম পদ্ধতিতে কর্মসম্পাদন করা
عَنْ أَبِي يَعْلَى شَدَّادِ بْنِ أَوْسٍ رَضِيَ اللهُ عَنْهُ عَنْ رَسُولِ اللَّهِ صلى الله عليه و سلم قَالَ: “إنَّ اللَّهَ كَتَبَ الْإِحْسَانَ عَلَى كُلِّ شَيْءٍ، فَإِذَا قَتَلْتُمْ فَأَحْسِنُوا الْقِتْلَةَ، وَإِذَا ذَبَحْتُمْ فَأَحْسِنُوا الذِّبْحَةَ، وَلْيُحِدَّ أَحَدُكُمْ شَفْرَتَهُ، وَلْيُرِحْ ذَبِيحَتَهُ”.
رَوَاهُ مُسْلِمٌ [رقم:1955].

আবু ইয়ালা শাদ্দাদ বিন আওস (রাঃ) হতে বর্ণিত, রাসূলুল্লাহ (সাঃ) বলেছেন : নিঃসন্দেহে আল্লাহ সমস্ত জিনিস উত্তম পদ্ধতিতে করার বিধান দিয়েছেন। সুতরাং যখন তুমি হত্যা করবে, তখন উত্তম পদ্ধতিতে হত্যা করবে আর যখন তুমি যবাহ করবে, তখন উত্তম পদ্ধতিতে যবাহ করবে। (যবেহের সময়) তোমাদের প্রত্যেকের আপন ছুরি ধারাল করে নেয়া উচিৎ ও যে জন্তুকে যবাহ করা হবে তার কষ্ট লাঘব করা উচিৎ।

-মুসলিম।

হাদীসের শিক্ষাঃ

  1. ইসলামে কোন অসহায়কে নির্যাতন বা কষ্ট দেওয়ার অনুমোদন নেই।
  2. দায়িত্বশীল ব্যক্তিকে সর্বদা দয়াপরবশ ও সহমর্মি হতে হবে।
  3. মানুষতো বটেই, এমনকি পশু-পাখি ও জীব-জানোয়ারের প্রতিও দয়াপরবশ হতে হবে এটা ইসলামের নির্দেশ।

তাছাড়া সকল কাজের সুচারুরূপে সম্পূর্ণ করার দিক নির্দেশনা রয়েছে উপরোক্ত হাদীসে।

মতামত দিন