জমজমের পানিতে অন্য পানি মেশানোর বিধান

প্রশ্ন: জমজম কুপের পানিতে বারবার অন্য পানি মিশিয়ে দীর্ঘ দিন পান করা যাবে কি?
উত্তর:
জমজমের পানি অবিমিশ্রিতভাবে পান করা উত্তম। রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বা সাহাবায়ে কেরাম কখনো এর সাথে অন্য পানি মিশিয়েছেন বলে তথ্য পাওয়া যায় না-যদিও তৎকালীন মক্কা থেকে দূরে অবস্থানকারীদের জন্য জমজমের পানি সংগ্রহ করা সহজ ছিল না।
তবে আলেমগণ বলেন, যদি তার সাথে অন্য পানি মিশানো হয় তাহলে তার উপকারিতা ও ফজিলত ততটুকু কমে যাবে যতটুকু অতিরিক্ত পানি মেশানো হয়েছে।

শাইখ জিবরীন রহ. বলেন:
الأفضل أن يُشرب ماء زمزم وحده ، فإن خُلط بغيره بقي له حُكم الفضل وجواز التداوي به ، وإن كان ذلك أنقص مما إذا كان خالصًا وحده ” انتهى من “موقع الشيخ ابن جبرين
“উত্তম হল, এককভাবে কেবল জমজম পানি পান করা। যদি তা অন্য পানির সাথে মেশানো হয় তাহলে যতটুকু জমজম অবশিষ্ট থাকবে ততটুকুর হুকুম অবশিষ্ট থাকবে এবং তা দ্বারা চিকিৎসা করা যাবে যদিও তাতে নির্ভেজাল পানির তুলনা উপকারিতা কম হবে।” [উৎস: islamqa ডট ইনফো]
সুতরাং জমজমের পানিতে সাধারণ পানি না মেশানোই ভালো। বরং পানি কম থাকলে অল্প অল্প করে পান করবেন। এতেই উপকার হবে ইনশাআল্লাহ।
আল্লাহু আলাম।
▬▬▬◄❖►▬▬▬
উত্তর প্রদানে:
আব্দুল্লাহিল হাদী বিন আব্দুল জলীল।
দাঈ, জুবাইল দাওয়াহ এন্ড গাইডেন্স সেন্টার, সৌদি আরব।
সূত্র

এ সম্পর্কিত আরও পোস্ট

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
slot gacor skybet88 slot online skybet88 skybet88 skybet88 slot gacor skybet88 skybet88 slot bonus new member skybet88 slot shopeepay skybet88 skybet88 skybet88 slot shopeepay slot gacor skybet88 demo slot skybet88 skybet88 skybet88 skybet88 skybet88