ইসলামিক গল্প

ধৈর্য একটি শিক্ষনীয় গল্প

সমুদ্রের মাঝখানে এক জাহাজ প্রচন্ড ঝড়ের মধ্যে পরে লন্ডভন্ড হয়ে গেল। সেই জাহাজে বেঁচে যাওয়া একজন মুসলিম যাত্রী ভাসতে ভাসতে এক দ্বীপে এসে পৌঁছালো।

প্রতিদিন সে দ্বীপের তীরে এসে বসে থাকতো এই আশায় যদি কোনো জাহাজ এসে তাকে উদ্ধার করে।

কিন্তু প্রতিদিন তাকে হতাশ হয়ে ফিরে আসতে হতো।

এরই মধ্যে সে সুমুদ্র তীরে একটি ছোট ঘর তৈরি করে ফেলল , সে প্রতিদিন মাছ শিকার করে ও জঙ্গলের ফলমুল খেয়ে বেঁচে থাকতো।

এরই মধ্যে একদিন সে জঙ্গলে খাবার সংগ্রহ করতে গেল এবং এসে দেখলো তার রান্না করার চুলো থেকে আগুন লেগে তার ঘরটি পুড়ে ছাড় খার হয়ে গেছে এবং তার কালো ধোঁয়ায় আকাশ ভোরে গেছে। এই দেখে লোকটি চিৎকার করে বলে উঠলো,

”হে আল্লহ তুমি আমার ভাগ্যে এটাই লিখে রেখে ছিলে”।

পরের দিন সকালে এক জাহাজের আওয়াজে তার ঘুম ভাঙলো । জাহাজটি সেই দ্বীপের দিকে তাকে উদ্ধার করার জন্য আসছিলো । সে অবাক হয়ে গেল এবং বলল আপনারা কিভাবে জানলেন যে আমি এই দ্বীপেই আটকে আছি।

জাহাজের ক্যাপ্টেন বলল আপনার জ্বালানো সেই ধোঁয়ার সংকেত দেখে।

শিক্ষাঃ–

আল্লাহপাক আমাদের ভালো ও মন্দের দ্বারা পরীক্ষা করে। আল্লাহ দেখে আমাদের মধ্যে কে ধৈর্যশীল ও সৎকর্মশীল । নিশ্চই আল্লহ একমাত্র বিপদ উদ্ধারকারী। নিশ্চই আল্লাহ সবকিছুর উপর পূর্ণ ক্ষমতাবান। তিনি বড়ই ক্ষমাশীল ও দয়ালু। নিশ্চিত রূপে তারই কাছে একদিন আমাদের প্রত্যাবর্তন করতে হবে।

Source

মতামত দিন